প্রথম উপজাতি ছাত্র প্রীতি

প্রথম উপজাতি ছাত্র প্রীতি

নাসিমুল ইসলাম
পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় হল সকল শ্রেণী ও অঞ্চলের মানুষের জায়গা। এখানে ধনী-গরীব, হিন্দু-মুসলমান সকলেই এক। নিজ নিজ জাত ভুলে গিয়ে সকলে এখানে একসাথেই স্বপ্ন দেখে। বাংলাদেশের অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয় গুলোর মত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপজাতি কোটা পূরণ করে প্রথম উপজাতি ছাত্র হিসেবে অধয়্যন করছে প্রীতি।
পুরো নাম প্রীতি কুসুম চাকমা। জন্ম খাগড়াছড়িতে। ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষে এডমিশন টেষ্টে অংশ নেওয়ার মাধ্যমে প্রীতি উপজাতি কোটায় বিজনেস ফ্যাকাল্টির হিসাববিজ্ঞান ও তথ্য পদ্ধতি বিভাগে অধ্যয়নের সুযোগ পায়। প্রথম ও একমাত্র শিক্ষার্থী হওয়ার কারণে সকলের প্রিয় মুখ হিসেবে ক্যাম্পাসে পরিচিত আমাদের প্রীতি! প্রীতি সকলের মাঝে উপজাতি কৃষ্টির জ্ঞান ছড়িয়ে দেওয়ার স্বপ্ন দেখে। সুদূর ও প্রত্যন্ত জেলা খাগড়াছড়ি থেকে এসে জ্ঞান অর্জনের দ্বারা বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য কিছু করার স্বপ্ন দেখে প্রীতি। প্রথম এই উপজাতি বন্ধুকে পেয়ে বশেমুরবিপ্রবি পরিবার সত্যিই গর্বিত।
নিশ্চয়ই একসময় বশেমুরবিপ্রবিও ভরে উঠবে সকল উপজাতিদের আড্ডায়।
লেখক: শিক্ষার্থী, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে

NO COMMENTS

Leave a Reply